পাথরে ভা’গ্য বদলে এক দিনেই ৩০ কোটি টাকার মালিক!

ছিলেন শ্রমিক। ঘাম ঝরানো পরিশ্রম করে দিন কাটাতে হত। পরিবারের ভার বহনে নিত্য হিমশিম খেতেন। কিন্তু হ’ঠাৎ এক দিনেই হয়ে গে’লেন ৩০ কোটি টাকার মালিক!

স’ম্প্রতি তানজানিয়ায় এ ঘ’টনা ঘ’টেছে। সানিনিউ কুরিয়ান লেইসার নামের ওই শ্রমিক তানজানিয়ার একটি খনিতে কাজ ক’রতেন। খনিতে কাজে’র সময় তিনি দুইটি পাথর খুঁজে পান। সেই পাথর দু’টিই তার ভাগ্য বদলে দিয়েছে।

খুঁজে পাওয়া পাথর দু’টি সাধারণ কোনো পাথর নয়। বিশ্বের অত্যন্ত বিরল ও মূল্যবান জেমস্টোন পাথর। গত সপ্তাহে তিনি পাথর দু’টি পাওয়ার পর বৃহস্পতিবার (২৫ জুন) ছবি প্র’কাশ করেন।তানজানিয়ায় এ পর্যন্ত যেসব মূল্যবান পাথর পাওয়া গেছে তার মধ্যে এই পাথর দুইটির মূল্য সবচেয়ে বেশি। এটাকে তার ‘ঐতিহাসিক আবিষ্কার’ বলে অভিহিত করেছে স্থা’নীয় সংবাদমাধ্যম।

দেশটির উত্তরাঞ্চলের মিরেরানি পাহাড়ের খনিতে পাওয়া যায় এ দুইটি পাথর। এর মধ্যে একটির ওজন ৯ দশমিক ২৭ কেজি ও আরেকটির ওজন ৫ দশমিক ১ কেজি।এ ঘ’টনায় দেশটির প্রেসিডেন্ট লেইসারকে ফোন করে অভিনন্দন জা’নান প্রেসিডেন্ট জন ম্যাগুফুলি। তিনি বলেন, এটা প্রমাণ করে তানজানিয়া একটি ধনী দেশ।

পাথর পাওয়ার পর ওই শ্রমিকের বাড়িতে এখন চলছে উৎসব। বড় বড় পু’লিশ ক’র্মকর্তাকে তাকে পাহারা দিচ্ছেন।
সংবাদমাধ্যমে বলা হয়েছে, পাথর দুটি তিনি ৭ দশমিক ৭ বিলিয়ন তানজানিয়ান শিলিংয়ে সরকারের কাছে বিক্রি করেছে। যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৩০ কোটি টাকা।

Related Articles

Back to top button
error: Alert: Content is protected !!